চট্টগ্রামে ৯৯৯-এ ফোন নারীকে হাসপাতালে নিল পুলিশ চট্টগ্রামে ৯৯৯-এ ফোন নারীকে হাসপাতালে নিল পুলিশ – Narail news 24.com
সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ০৯:৩৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
লোহাগড়ায় রেল প্রজেক্টের চোরাই মালসহ গ্রেফতার ১ কালিয়ায় ৬ ক্লিনিককে জরিমানা,অপারেশন থিয়েটার সিলগালা নড়াইলে ক্লাইমেট স্মার্ট কৃষি প্রযুক্তি মেলা শুরু ভবন নির্মাণে বিল্ডিং কোড অনুসরণ নিশ্চিত করতে ডিসি সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান নড়াইলে জি আর প্রকল্পের হরিলুট ! নড়াইলে স্বাস্থ্য বিভাগের অভিযান: ল্যাবস্টার ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধ ঘোষনা লোহাগড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৩ নড়াগাতীতে ট্রলি থেকে ছিটকে পড়ে প্রাণ গেল হেলপারের নড়াইলে স্মরণসভা সভা অনুষ্ঠিত যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় সশস্ত্র বাহিনীকে সক্ষম করে তোলা হচ্ছে – প্রধানমন্ত্রী

চট্টগ্রামে ৯৯৯-এ ফোন নারীকে হাসপাতালে নিল পুলিশ

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ৮ জুন, ২০২১

 নড়াইল নিউজ ২৪.কম ডেস্ক:

চট্টগ্রামের হালিশহর থানার নয়াবাজার বিশ্বরোড এলাকা থেকে প্রসব যন্ত্রণায় অচেতন অবস্থায় পড়ে থাকা মানসিক ভারসাম্যহীন এক নারীকে হাসপাতালে নিয়ে যায় পুলিশ। পরে ওই নারী একটি ছেলে সন্তান জন্ম দিয়েছেন। জরুরি সেবা ৯৯৯-এ ফোন পেয়ে নারীটিকে হালিশহর থানার এসআই সতেজ বড়ুয়া হাসপাতালে নিয়ে যান। মঙ্গলবার (৮ জুন) চট্টগ্রামের হালিশহর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, বর্তমানে ভারসাম্যহীন ওই নারী চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। তার ছেলে সন্তান সুস্থ আছে।

তিনি জানান, নবজাতককে দেখাশোনার জন্য আপাতত স্থানীয় এক দম্পতির কাছে রাখা হয়েছে। নবজাতকের বিষয়ে আজ (মঙ্গলবার) আদালতে আবেদন করা হবে। এরপর আদালতের আদেশ অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, সোমবার (৭ জুন) বিকেল ৪টা ২০ মিনিটে ৯৯৯-এ একজন ফোন করে জানান, চট্টগ্রামের নয়াবাজার বিশ্বরোডের কাঁচা বাজারের সামনে মানসিক ভারসাম্যহীন এক নারী প্রসব যন্ত্রণায় অচেতন অবস্থায় পড়ে আছেন। পরে বিষয়টি হালিশহর থানার মোবাইল ডিউটি করা এসআই সতেজ বড়ুয়াকে জানানো হয়।

সতেজ বড়ুয়া ৯৯৯-এ কলকারী ব্যক্তি সুমনসহ অন্যদের সহায়তায় ওই নারীকে রাস্তা থেকে তুলে ব্র্যাক মেটারনিটি সেন্টারে ভর্তি করান। সেখানে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে ওই নারী একটি ছেলে সন্তান প্রসব করে।

পরে বাচ্চা ও মায়ের দেখাশোনা করার জন্য লাইটহাউজ কনসোর্টিয়াম এনজিওর কর্মী শারমিনকে সঙ্গে নেওয়া হয়। তাকে সঙ্গে নিয়ে বাচ্চা এবং বাচ্চার মায়ের স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য আগ্রাবাদ মা ও শিশু হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয় তাদের। পরে বাচ্চাটিকে দেখাশোনার জন্য স্থানীয় এক দম্পতির কাছে রাখা হয়। মানসিক ভারসাম্যহীন মা বর্তমানে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

© এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি

ফেসবুকে শেয়ার করুন

More News Of This Category
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
Developed by: A TO Z IT HOST
Tuhin
x