লোহাগড়ায় মাহাবুরের ওপর হামলার ঘটনায় মামলা দায়ের লোহাগড়ায় মাহাবুরের ওপর হামলার ঘটনায় মামলা দায়ের – Narail news 24.com
সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ০৮:০৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ভবন নির্মাণে বিল্ডিং কোড অনুসরণ নিশ্চিত করতে ডিসি সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান নড়াইলে জি আর প্রকল্পের হরিলুট ! নড়াইলে স্বাস্থ্য বিভাগের অভিযান: ল্যাবস্টার ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধ ঘোষনা লোহাগড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৩ নড়াগাতীতে ট্রলি থেকে ছিটকে পড়ে প্রাণ গেল হেলপারের নড়াইলে স্মরণসভা সভা অনুষ্ঠিত যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় সশস্ত্র বাহিনীকে সক্ষম করে তোলা হচ্ছে – প্রধানমন্ত্রী অবৈধ বা যন্ত্রপাতিহীন হাসপাতাল বন্ধে অভিযান চলবে – স্বাস্থ্যমন্ত্রী দেশে মোট ভোটার ১২ কোটি সাড়ে ১৮ লাখ – সিইসি বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া ছাত্রীকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় মাদরাসার ছাত্র খুন, আহত-২

লোহাগড়ায় মাহাবুরের ওপর হামলার ঘটনায় মামলা দায়ের

Reporter Name
  • Update Time : রবিবার, ২৩ মে, ২০২১
মাহাবুর মোল্যা

নড়াইল নিউজ ২৪.কম :
এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার ব্রাহ্মণডাঙ্গা গ্রামে মাহাবুর মোল্যা (৪৮) নামে এক মাতুব্বরের ওপর হামলার ঘটনায় মামলা হয়েছে । রবিবার (২৩মে) লোহাগড়ায় থানায় মামলাটি দায়ের করেন আহত মাহাবুবের স্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিন। মামলায় প্রতিপক্ষের মাতুব্বার ব্রাহ্মণডাঙ্গা গ্রামের তাইজুল ইসলামসহ ১১ জনের নাম উল্লেখ করা হয়েছে।

জানাগেছে, এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে গত ২১ মে (শুক্রবার) সন্ধ্যায় ব্রাহ্মণডাঙ্গা গ্রামের হারেজ মোল্যার ছেলে মাহাবুব মোল্যা স্থানীয় বাজার থেকে বাড়ি যাচ্ছিলেন। বাড়ি যাবার সময় প্রতিপক্ষের ১০/১২জন লোক মাহাবুর রহমানের ওপর হামলা করে। এসময় প্রতিপক্সের লোকজন ধারালো অস্ত্র দিয়ে মাহাবুরের বাম পায়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। এছাড়াও তার শরীরে ২/৩টি কোপ দিয়ে গুরুতর জখম করে।
স্থানীয় লোকজন মাহাবুবকে উদ্ধার করে প্রথম নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। পায়ের জখম গুরুতর হওয়ায় রাতেই ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে নেওয়া হয়। বর্তমানে সেখানে চিকিৎসাধীন আছেন। চিকিৎসকরা তার বাম পা টিকিয়ে রাখার জন্য চেষ্টা অব্যাহত রেখেছেন।

বিভিন্নসূত্রে জানাগেছে, নোয়াগ্রাম ইউনিয়নের ব্রাহ্মণডাঙ্গা, চর-ব্রাহ্মণডাঙ্গা, বাড়ীভাঙ্গা ও হান্দলা গ্রাম নিয়ে দুটি সামাজিক দল রয়েছে। একটি দলের নেতৃত্ব দেন নাজির মোল্যা ও মাহাবুব মোল্যা। অপর গ্রুপের
নেতৃত্বে দেন তাইজুল ইসলাম ও জাকির মেম্বর।

অভিযুক্ত তাইজুল মোল্যা মুঠোফোনে বলেন, ‘গত ২০মে প্রতিপক্ষ মাহাবুর মাতুব্বর আমাকে হত্যার পরিকল্পনা করে। আমাকে হত্যার জন্য ব্রাহ্মণডাঙ্গা বাজার, বাড়িভঙ্গা ও রায়গ্রাম লোক সেট করে রাখে। আমি খবর পেয়ে বিকল্প সড়ক দিয়ে বাড়িতে যাই। বিষয়টি আমাদের লোকজন জানতে পেরে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে শুক্রবার সন্ধ্যায় ব্রাহ্মণডাঙ্গা বাজারে দুপক্ষের মধ্যে মারামারি হয়। এতে দুপক্ষের লোকজনই আহত হন।’

অপরপক্ষের মাতুব্বর নোয়াগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নূরুজ্জামান নূরনবী মুঠোফোনে বলেন, ‘ ব্রাহ্মণডাঙ্গার তাইজেল, শিপন, এনামুল সহ ১০/১২জন মাহাবুরকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালায়। বর্তমানে মাহাবুব ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। তার পায়ের অবস্থা ভাল না।’

এদিকে হামলার পর থেকে এলাকাবাসীর মাঝে চরম আতঙ্ক বিরাজ করছে। অনেকেই ভয়ে বাড়ির মুল্যবান আসবাবপত্র, গরু ছাগল সহ মুল্যবান জিনিসপত্র আত্মীয় স্বজনের বাড়িতে পাঠিয়ে দিয়েছে। গ্রেফতার আতঙ্কে একটি পক্ষের লোকজন পলাতক রয়েছে।

লোহাগড়া থানার ওসি সৈয়দ আশিকুর রহমান বলেন,‘ এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মাহাবুবের ওপর এ হামলার ঘটনা ঘটেছে। এই এলাকায় বেশ কিছুদিন ধরে উত্তেজনা বিরাজ করছিলো। কয়েকদিন ধরে পুলিশের উপস্থিতিতে বড় ধরনের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটতে পারেনি। বর্তমানে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। পরিস্থিতিও স্বাভাবিক রয়েছে। আহত মাহাবুবের স্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিন ২৩ মে বাদী হয়ে ১১ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দিয়েছেন (মামলা নং-১৯)। আসামীরা সবাই পলাতক রয়েছে। তবে তাদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশের জোর অভিযান চলমান রয়েছে।’

© এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি

ফেসবুকে শেয়ার করুন

More News Of This Category
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
Developed by: A TO Z IT HOST
Tuhin
x